Home » অন্যান্য >> » ২০ বছর বয়সে নেয়া যে ৫ টি সিদ্ধান্ত আপনার জীবনকে করবে অনেক সুখী
girl

২০ বছর বয়সে নেয়া যে ৫ টি সিদ্ধান্ত আপনার জীবনকে করবে অনেক সুখী

girlঅনেকের শেষ বয়সে গিয়ে জীবনের ফেলে আসা দিনগুলোর ভুল সিদ্ধান্ত নিয়ে আফসোস করে থাকেন। বয়স ৫০ পার হতে না হতেই যখন নানা দুশ্চিন্তা এবং অসুস্থতা দেহে ভর করে তখন অনেকেই ভাবেন প্রথম বয়সে ভুল সিদ্ধান্তগুলো না নিলে জীবনটা অন্যরকম হয়ে যেতো। কথাটি আসলেই সত্যি। সময় থাকতে সঠিক সিদ্ধান্ত নিতে পারলে জীবনটা আসলেই অনেক বেশি সুখের হয়ে উঠে। শেষ বয়সে গিয়ে আর আফসোস করতে হয় না।

১) ধূমপান না করার সিদ্ধান্ত

আপনি হয়তো এখন বুঝতে পারছেন না কিন্তু আপনার নিয়মিত ধূমপানের কারণে ধীরে ধীরে শেষ হয়ে আসছে আপনার জীবনী শক্তি। আপনি বর্তমানে এর ভয়াবহতা টের না পেলেও শেষ বয়সে যখন অসুস্থ শরীর টানতে পারবেন না তখন ঠিকই আফসোসের বাক্য বলতে থাকবেন। কিন্তু তখন আর কিছুই করার থাকবে না। তাই সতর্ক হয়ে যান সময় থাকতেই।

২) অতিরিক্ত অস্বাস্থ্যকর খাবার না খাওয়ার সিদ্ধান্ত

মুখের স্বাদের কথা ভেবে এবং তরুণ বয়সে বন্ধুবান্ধবের সাথে আড্ডায় হরহামেশাই অস্বাস্থ্যকর খাবার খাচ্ছেন আপনি। এখন এইসব খাবার খেতে খুব ভালো লাগছে, কিন্তু এই সকল খাবারের বিরূপ প্রভাব দেহের উপর পড়া শুরু করবে বয়স ৩৫-৩৫ এর পর থেকেই। অল্প বয়সেউ বুড়িয়ে যাওয়া এইসকল অস্বাস্থ্যকর খাদ্যের অন্যতম প্রধান কারণ। তাই যদি খুব বেশিই খেতে ইচ্ছে করে তাহলে অল্প পরিমানেই খান। বেশি খাবেন না।

৩) বাবা-মা এবং ভাই-বোনের সাথে সু-সম্পর্কের

কথাটি রুঢ় হলেও সত্যি যে আপনার বাবা-মা, ভাই-বোন বাদে পৃথিবীতে আপনার কষ্টে দুঃখ পাওয়ার মতো কাউকে খুঁজে পাবেন না। বর্তমানে অনেক বন্ধু বান্ধবের ভিড়ে আপনি এই সত্যটি উপেক্ষা করলেও যখন বয়স বাড়তে থাকবে তখন সত্য আপনার চোখের সামনে উপস্থিত হবে। তাই সময় থাকতেই এই সম্পর্কগুলো ধরে রাখুন। কখনো খারাপ ব্যবহার করবেন না।

৪) সঞ্চয় শুরু করার সিদ্ধান্ত

২০ বছর বয়েসে সত্যিকার অর্থেই সঞ্চয়ের কথা কারো মাথায় থাকে না যদি না সে অনেক কষ্টে মানুষ হয়ে থাকেন। অনেকেই ভাবেন মাত্র তো ২০ বছর বয়স সঞ্চয়ের অনেকটা সময়ে বাকি পড়ে আছে। কিন্তু আপনার এই ভাবনা ভাবনাই থেকে যাবে। আজকে না কালকে করে সঞ্চয়ের বিষয়টি অনেক বেশি উপেক্ষা করার কারণে জীবনের অনেক সুযোগের সময় টাকা না থাকার কারণে সুযোগ হারিয়ে ফেলতে পারেন। তাই নিজের পায়ে দাঁড়ানোর কথা চিন্তা করে হলেও সঞ্চয়ের সিদ্ধান্ত নিন।

৫) নিজের জীবনের লক্ষ্য সঠিক করার সিদ্ধান্ত

জীবনের লক্ষ্য সঠিক করা জীবনের সবচাইতে গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্তগুলোর মধ্যে একটি। আপনি যদি ভেবে থাকেন ২০ বছর বয়সে এসে এই লক্ষ্য নিয়ে না ভাবলেও চলবে তাহলে আপনি ভুল ভাবছেন। আপনি যতো দেরি করবেন জীবনের লক্ষ্যে পৌঁছুতে আপনার ততোই দেরি হবে। পড়ালেখা শেষ করে একটি চাকরীর আশা নিয়ে আজকাল কেউ বড় হতে পারে না। বরং পড়ালেখার পাশাপাশি অল্প বয়স থেকেই অন্যান্য কাজে নিজেকে জড়িয়ে নিতে পারলেই জীবনের লক্ষ্যে পৌছানো সম্ভব।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

You may use these HTML tags and attributes: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <strike> <strong>